অনলাইন নিউজ পোর্টাল কি? অনলাইন নিউজ পোর্টালের ইতিহাস

মো: সাইফুল ইসলাম:


অনলাইন নিউজ পোর্টাল কি? নিউজ পোর্টালের ইতিহাস

অনলাইন নিউজ পোর্টাল হল বিশেষভাবে তৈরি করা ওয়েবসাইট, যেখানে প্রচলিত সংবাদ উৎস্য থেকে তথ্য সংগ্রহ করে তা সংবাদ আকারে প্রকাশ করা হয়। এ তথ্য গুলো আসতে পারে ই মেইল, অনলাইন ফোরাম, সার্চ ইঞ্জিন অথবা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকে।


অনলাইন নিউজ পোর্টাল


এ ধরণের নিউজ পোর্টালে সংবাদপত্রের মতো কোন পৃষ্ঠাসজ্জা বা পৃষ্ঠার স্থান সংকোচনের প্রয়োজন হয় না। এখানে দৈনিক অসংখ্য সংবাদ প্রকাশ করা যায়। পাঠক তার পছন্দমত সংবাদে ক্লিক করে পড়ে নিতে পারে।

১৯৭৪ সালে যুক্তরাষ্ট্রের ইলিনয়েস স্টেট ইউনিভার্সিটি থেকে প্রথম  নিউজ পোর্টাল চালু করা হয়। এ নিউজ পোর্টাল টির নাম ছিল ‘নিউজ রিপোর্ট ‘। এরপর বিশ্বের বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম তাদের নিউজ পোর্টাল চালু করে। তবে ২০০০ সালে যুক্তরাজ্য থেকে চালু হওয়া  নিউজ পোর্টাল ‘সাউথ পোর্ট রিপোর্টার’ কে আধুনিক  নিউজ পোর্টাল হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

বাংলাদেশেও বর্তমানে  নিউজ পোর্টাল জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। সবার আগে দ্রুত সংবাদ পৌঁছে দেওয়ার জন্য  নিউজ পোর্টাল বর্তমানে সবচেয়ে কার্যকর ভূমিকা পালন করে। বাংলাদেশে ইন্টারনেট সহজলভ্য হওয়ার সাথে সাথে শহর থেকে গ্রাম পর্যন্ত সর্বত্র অনলাইন সাংবাদিকতার ক্ষেত্র বিস্তৃত হয়েছে। এখন সংবাদের জন্য কেউ পর দিনের সংবাদপত্র অথবা ঘন্টা ব্যাপী টেলিভিশন সংবাদের জন্য অপেক্ষা করতে হয় না।  নিউজ পোর্টালে একটি ঘটনার বর্ণনা ভিডিও সহ দেওয়া থাকে। বলতে গেলে নিউজ পোর্টালে সংবাদপত্র ও সম্প্রচার সাংবাদিকতা উভয়ই করা হয়। 


বাংলাদেশে ২০০৪ সালে প্রথম bdnews24.com এর মাধ্যমে অনলাইন সাংবাদিকতার সূচনা হয়। বিশিষ্ট সাংবাদিক আলমগীর হোসেন এ পোর্টালটির সম্পাদক এবং প্রধান উদ্যোক্তা ছিলেন।


২০১৩ সালে দেশে বেশ কিছু  নিউজ পোর্টাল জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। এরমধ্যে আছে প্রিয়.কম,রাইজিংবিডি.কম,বাংলামেইল২৪.কম প্রভৃতি। এরপর দেশের জনপ্রিয় সংবাদ পত্র ও টিভি চ্যানেল গুলোও তাদের পত্রিকা ও চ্যানেলের অনলাইন ভার্সন চালু করে ।


২০১৭ সালে বাংলা ওয়েবসাইটে গুগোল এডসেন্স এর এড শোর জন্য মনিটাইজেশন দেওয়া হয়। এখন বাংলা অনলাইন পোর্টাল গুলোতে এড শোর অনুমতি পাওয়ার পর  নিউজ পোর্টালের আয় বেড়ে যায়। সামনে  নিউজ পোর্টাল গুলোর জনপ্রিয়তা আরো বৃদ্ধি পাবে তা সহজেই অনুমান করা যায়।



Know More…ওয়াটার গেট কেলেঙ্কারি

লেখক : শিক্ষার্থী
৪র্থ বর্ষ( ২১ তম ব্যাচ )
যোগাযোগওসাংবাদিকতা বিভাগ
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*